আজ : ১০:০৯, সেপ্টেম্বর ২০ , ২০১৯, ৫ আশ্বিন, ১৪২৬
শিরোনাম :

গ্রিসে অ্যাগোরা রেসিডেন্সি হলেন কবি শামীম আজাদ


আপডেট:০৭:২৪, মে ৪ , ২০১৯
photo

লন্ডনবিডিনিউজঃ শামীম আজাদশিল্প-সাহিত্য ও সভ্যতার জন্মভূমি ঐতিহাসিক গ্রিসে আবাসিক কবির সম্মাননা পেয়েছেন ব্রিটিশ বাংলাদেশি কবি শামীম আজাদ। এথেন্সের সাহিত্যাঙ্গনের সংগঠন ‘আ পোয়েটস অ্যাগোরা রেসিডেন্সি’ তাঁকে ২০১৯ সালের জন্য আবাসিক কবি হিসেবে গ্রহণ করেছে।

শামীম আজাদ প্রাচীন এথেন্সের প্লাকা অঞ্চলে ১৮০১ সালে নির্মিত একটি নব্য-ধ্রুপদি বাড়িতে ১০ থেকে ২৪ মে পর্যন্ত অবস্থান করবেন। কবি শামীম আজাদ প্রথম কোনো বাংলাদেশি, যিনি আ পোয়েটস অ্যাগোরা রেসিডেন্সির আবাসিকত্ব পেলেন।

যুক্তরাজ্যে বসবাসরত শামীম আজাদ একজন দ্বিভাষিক কবি, লেখক ও গল্প-বলিয়ে। বাংলা ও ইংরেজি মিলিয়ে এ পর্যন্ত তিনি ৩৭টির বেশি বই লিখেছেন ও সম্পাদনা করেছেন। শামীম আজাদের সাহিত্যকর্ম ও তাঁর অনুবাদ যুক্তরাষ্ট্রের বিখ্যাত সাহিত্য সাময়িকী নিউইয়র্কার্সসহ বিশ্বের নানান প্রকাশনায় বের হয়েছে।

প্রতিবছর সাহিত্যকর্ম বিবেচনায় বিভিন্ন দেশের কবি-সাহিত্যিককে আবাসিকত্ব প্রদান করে আ পোয়েটস অ্যাগোরা রেসিডেন্সি। গ্রিক শব্দ ‘অ্যাগোরভেইন’ (agorvein) থেকে অ্যাগোরা (Agora) শব্দের উৎপত্তি। এর সাধারণ অর্থ হচ্ছে ‘বাজার’। অবশ্য এর আদি মানে হচ্ছে একটি স্থান যেখানে এক বা একাধিক গোষ্ঠী পারস্পরিক আলাপ-আলোচনার জন্য মিলিত হতে পারে।

লন্ডনবাংলা প্রেসক্লাবের বৈশাখী আড্ডা অনুষ্ঠানে কবি শামীম আজাদ বলেন, ‘এ আবাসিকত্ব লাভের মানে হলো, আমি তাদের সম্মানিত অতিথি। তাই আ পোয়েটস অ্যাগোরা রেসিডেন্সির সৌজন্যে দিতে হবে দুটি বক্তৃতা। নৈশভোজসহ নানানভাবে পরিচিতি ও সংযোগ ঘটবে গ্রিসের সম্মানিত কবিদের সঙ্গে। ওই আবাসিকত্ব আমাকে আমার চিন্তা-চেতনার, লেখালেখির একটি ভাবনাবিহীন নির্জন সুযোগ দেবে। জানতে পারব গ্রিসের সাহিত্যের ইতিহাসসহ তার সমসাময়িক অবস্থান। ওই সুযোগে আমাকে লিখতে হবে কিছু ইংরেজি কবিতা, যার ভাষান্তর হবে গ্রিক ভাষায়।। এসব কর্ম আ পোয়েটস অ্যাগোরার বার্ষিক প্রকাশনীতে স্থান পাবে।’



সাম্প্রতিক খবর

লন্ডনে অমুসলিমদের নিয়ে ব্যাতিক্রমী ডিনার পার্টি

photo লন্ডনবিডিনিউজ২৪ঃ ১৮ সেপ্টেম্বর বুধবার পূর্ব লন্ডনের ঐতিহ্যবাহী লন্ডন মুসলিম সেন্টারে বিভিন্ন পেশাদারি অমসুলিমদের নিয়ে একটি সুন্দর সন্ধ্যায় একটি সংলাপ, ইসলাম প্রদশনী ও ডিনারের আয়োজন করা হয়। ইসলাম এওয়ার্নেস প্রজেক্ট আয়োজিত লন্ডনের বিভিন্ন এলাকা থেকে আগত শিক্ষক, ডাক্তার, আইনজীবী, চার্চের প্রিস্ট, মিডিয়া কর্মী সহ বিভিন্ন পেশায় নিয়োজিত প্রায় চারশত অমুসলিমদের উপস্থিতিতে এই

বিস্তারিত

0 Comments

Add new comment